News & Events

ইউনাইটেড কলেজ অব এভিয়েশনে শিক্ষা সমাপনী এবং নবীনবরন অনুষ্ঠান পালিত।



বাংলাদেশ জাতীয় সংগীত ও নৃত্যকলা মিলনায়তনে গতকাল উৎসবমুখর পরিবেশে ইউনাউটেড কলেজ অব এভিয়েশন সাইন্স এন্ড ম্যানেজমেন্ট এর শিক্ষা সমাপনী ও ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের নবীন বরণ অনুষ্ঠিত হয়েছে ।উক্ত অনুষ্ঠানে বিগত বছরে এন ডি, এইচ এনডি,এভিয়েশন ম্যানেজমেন্ট এবং কেবিন ক্রু এই চারটি বিভাগে পাস কৃত ছাত্রদের সনদ প্রধান ও একই বিভাগে ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীদের বরণ করে নেওয়া হয় । ইউসিএএসএম এর অধ্যক্ষ মোহাম্মদ আলীর সভাপতিত্বে অনষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন পিয়ারসন ,বিটিএসি এর বিজনেস ডেভোলাপমেন্ট ম্যানেজার শাহিন রেজা।বিশেষ অতিথি ছিলেন সিইও,সানজুয়ান ইউনিভারসিটি ও আমেরিকান লার্নিং সেন্টার ড.ইহাব আল সামি ,বাংলাদেম আবহাওয়া অধিদপ্তরের প্রাক্তন পরিচালক ড.সমেন্দ্র কুমার । এসময় সভাপতির ভাষণে অধ্যক্ষ মোহাম্মদ আলী বলেন, আগামীর সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্য পূরণে আমাদের তরুণ সমাজকে গড়ে তুলতে হবে। তরুণ প্রজন্মই এ জাতির প্রাণশক্তি, সমাজ পরিবর্তনের প্রধান হাতিয়ার। তাদের অমিত সম্ভাবনাকে বিকশিত করতে আধুনিক তথ্যপ্রযুক্তি ও জ্ঞানবিজ্ঞানে সমৃদ্ধ করতে হবে। গবেষণার মাধ্যমে সৃষ্টি হয় নতুন জ্ঞানের, যা জ্ঞানভিত্তিক সমাজ গঠনে অবদান রাখে । সব সময় আত্মজিজ্ঞাসা রাখবে, বিবেক দিয়ে কাজ করবে। অন্যায় ও অসত্যের কাছে মাথা নত করবে না। দেশ ও জাতির স্বার্থকে অগ্রাধিকার দেবে । সমাজের বিদ্যমান অসুন্দর দূর করতে তোমরা হবে আলোকবর্তিকা।’ শিক্ষা সমাপনী ও নবীন বরণ অনুঠানে প্রধান অতিথি ও প্রধান বক্তা হিসেবে ভাষণ দান করেন পিয়ারসন ,বিটিএসি এর বিজনেস ডেভোলাপমেন্ট ম্যানেজার শাহিন রেজা । সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তার ভাষণে তিনি বলেন, সমাজে পরষ্পরের প্রতি শ্রদ্ধাবোধ, সহিষ্ণুতা ও মানবিক মূল্যবোধ জাগ্রত রেখে দেশের প্রতিটি নাগরিকের কাজ হবে নিজ নিজ দায়িত্ব ও কর্তব্য সঠিকভাবে পালন করা। এ বিষয়টি সব সময়ের জন্যেই প্রযোজ্য। ’ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির ভাষণে ড.ইহাব আল সামি , সি ই ও সানজুয়ান ইউনিভারসিটি ও আমেরিকান লার্নিং সেন্টার বলেন , ‘আমাদের শিক্ষার মূল লক্ষ্য- আমাদের নতুন প্রজন্মকে আধুনিক পৃথিবির নির্মাতা হিসেবে প্রস্তুত করা। প্রচলিত, গতানুগতিক শিক্ষায় তা সম্ভব নয়। বর্তমান যুগের সাথে সংগতিপূর্ণ আধুনিক বিশ্বমানের শিক্ষা ও জ্ঞান প্রযুক্তিতে দক্ষ, নৈতিক মূল্যবোধ ও এ পরিপূর্ণ মানুষ তৈরি করা আমাদের প্রধান লক্ষ্য। পৃথিবি এখন আর নিদিষ্ট কোন সীমার মাঝে থেমে নেই ,গ্লোবাল এই পৃথিবিতে আপনি যদি নিজেকে যোগ্য করে প্রতিষ্ঠিত করতে চান তাহলে বিশ্ব মানের শিক্ষা ই আপনাদের নিতে হবে আর এর ধারাবাহিকতায় আমরা আপনাদের পাশে আছি, থাকব । আমরা জানি বাংলাদেশ তথ্যপ্রযুক্তিতে এগিয়ে যাচ্ছে এবং আগামিতেও তা অব্যাহত থাকবে । কলেজের শিক্ষার পরিবেশ এবং গুণগত মান বৃদ্ধির জন্য অব্যাহত প্রচেষ্টা চালিয়ে যেতে হবে। এ জন্য বিষয় বাছাই, শিক্ষাক্রম উন্নয়ন, শিক্ষাদানের পদ্ধতি অব্যাহতভাবে উন্নত করতে হবে। অধ্যক্ষ তাঁর ভাষণে বলেন, ‘ ইউনাইটেড কলেজ অব এভিয়েশন সাইন্স এন্ড ম্যানেজমেন্ট কালের পরিক্রমায় ক্রমশ অধিকতর সক্ষমতা অর্জন করেছে।সনদপ্রাপ্তদের উদ্দেশ্যে অধ্যক্ষ বলেন, ‘আপনারা ইউনাইটেড কলেজ অব এভিয়েশন সাইন্স এন্ড ম্যানেজমেন্ট এর গর্ব ও অহঙ্কার। এই ক্যাম্পাস এবং ইউসিএএসএম পরিবারের সঙ্গে আপনাদের যে নাড়ির সম্পর্ক স্থাপিত হয়েছে তা কোনো দিন ছেদ হবার নয়। আপনারা এই শিক্ষাঙ্গনের শুভেচ্ছাদূত। আপনাদের সাফল্যে ইউসিএএসএম ভাবমূর্তি উজ্জ্বল হবে এবং পরিচয় বিকশিত হবে। আমি আপনাদের সুস্বাস্থ্য, দীর্ঘায়ু এবং কর্মময় জীবনের সাফল্য কামনা করি।’ কৃতিত্বপূর্ণ ফলাফল অর্জন করায় বারজন সনদপ্রাপ্ত ছাত্রকে বেস্ট এওর্য়াড অব দ্যা এয়ার পদক প্রদান করা হয় । এছাড়াও তের জনকে ওমর সুলতান ফাউন্ডেশন বৃত্তি প্রদান করা হয় ।সমাবর্তনকে কেন্দ্র করে ক্যাম্পাসও বাংলাদেশ জাতীয় সংগীত ও নৃত্যকলা মিলনায়তনকে বহুবর্ণিল সাজে সাজানো হয়। সনদ প্রদান ও নবীন বরণ শেষে সন্ধ্যা ছয়টা থেকে অনুষ্ঠিত হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান যা রাত নয়টা পর্যন্ত চলে ।